দিনযাপন | ২৯০৪২০১৫

ইদানীং দিনযাপন সময়মতো পোস্ট করা নিয়ে নানাবিধ ক্যাচালের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি … একে তো কিউবি’র হঠাৎ হঠাৎ মাথা খারাপ হয়ে যায় ওয়ার্ডপ্রেস খোলেই না, তারওপর এখন তো আর স্মার্ট ফোনটাও নাই যে হটস্পট দিয়ে নেট ব্যাকআপ দিবো … আর এখন তো ইলেক্ট্রিসিটির প্রব্লেম আছেই … দেখা গেলো রাতে লিখতে পারিনি দেখে সকালে ঘুম থেকে উঠে লেখা শেষ করলাম, আর তারপর যখন পোস্ট করতে যাবো, তখনি ইলেক্ট্রিসিটি চলে গেলো … তারপর সারাদিন ওয়ার্ডপ্রেস -এরই খবর নাই …

গতকালকের লেখাটাই যেমন পোস্ট করতে পারলাম আজকে রাত ১২টায় …

মোবাইল কেনাটা জরুরি হয়ে যাচ্ছে … হাতে টাকা নেই … একজনের কাছে হাজার পাঁচেক টাকা পাই … তার কাছে চেয়েছিও … কিন্তু টাকা দেবে কি দেবে না সে ব্যাপারে কোনো উত্তর পাইনি … বারবার টাকা চাইতেও লজ্জা লাগে … সে তো আর হাই-হ্যালো টাইপের পরিচিত কেউ না যে টাকা না দিলে বিরক্ত হয়ে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়া যাবে … সে পারিবারিকভাবেই অনেক কাছের মানুষ … তাই ভদ্রতার খাতিরে কিছু বলতেও পারছি না … ধরেই নিতে হচ্ছে যে নিশ্চয়ই এমন ঝামেলায় আছে যে দুই-তিন মাস হয়ে গেলো তাও এই উইক নেক্সট উইক করে করে টাকাটা দিতে দেরি করছে …

মনে হচ্ছে মা’র কাছ থেকেই টাকা হাওলাদ নিয়ে ফোন কিনে ফেলতে হবে … অ্যাজ সুন অ্যাজ পসিবল …

না ছবি তোলা হচ্ছে, না ইন্টারনেট ব্যবহার করা হচ্ছে, না আনুষঙ্গিক কাজগুলো হচ্ছে … যেমন ভায়োলিনের প্র্যাকটিসের সময়ই সবচেয়ে বেশি দরকার হয় টিউনার আর পিয়ানোর অ্যাপ্লিকেশন … গত দুই তিনদিন যাবত সেটাই ব্যবহার করতে পারছি না … আবার ট্রান্সলেশনের কাজ করার সময় হুটহাট ডিকশনারি লাগলে মোবাইল -এর ডিকশনারিটাই ব্যবহার করি … আর রাস্তায় বোরিং সময় কাটানোর সময় গেমস আর গানের কথা বাদই দিলাম …

৬০০০ টাকার মধ্যেই অনেক ভালো একটা অ্যান্ড্রেয়েড ফোন কিনে ফেলা সম্ভব … অথচ ওই টাকাটাই নাই …

যাই হোক, আজকে লেখার মতো তেমন কিছু নাই … লিখতে ইচ্ছাও করছে না … ঘুমের ওষুধের প্রভাব অলরেডি শুরু হয়ে গেছে … চার্লি অ্যান্ড দ্যা চকোলেট ফ্যাক্টরি মুভিটা দেখছিলাম … ওটা দেখতে দেখতে ঘুম এসে পড়বে পুরোপুরি … সকাল সকাল উঠে কালকে বিবিসি’র কাজটা ধরতেই হবে … দুইটা এপিসোড এর কাজ … দুই দিনের মধ্যে শেষ করতেই হবে যেভাবেই হোক … ১ মে থেকে ৩ মে পর্যন্ত সারাদিন দৌড়াদৌড়ি থাকবে … কিছুই করার সুযোগ পাবো না … সুতরাং কালকের দিন আর রাতটাই সুযোগ কাজ আগিয়ে রাখার …

৫ মে পর্যন্ত নিজেকে ডেডলাইন দিয়েছি বিবিসি’র কাজ, মিতুল ভাইয়ের জন্য স্ক্রিপ্ট শেষ করবার জন্য … তারপর আর কোনো কাজ নেবো না হাতে … কালকে যেমনটা লিখলাম … অন্তত ৫-৬ টা দিন আর কিছু না করে খালি জিনিসপত্র বাক্সবন্দী করবো … বইগুলো, কাপড়চোপড় … এগুলা গুছাতেই বেশি সময় লাগে … তাই এগুলো গুছানোর কাজই আগে করে রাখতে হবে … বই আর কাপড়চোপড়ের সংখ্যাও তো নেহায়েত কম নয় আমার! …

আজকের মতো দিনযাপন এখানেই শেষ …

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s