দিনযাপন| ২৯০৮২০১৫

ব্যাপক টায়ার্ড … তার চেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে প্রচণ্ড মাথা ব্যথা … দুই রাত ঠিকমতো ঘুম হয়নি … কাজ করেছি রাত জেগে, ভোরের একটু আগে ঘুমিয়েছি, আবার সকালবেলাও তাড়াতাড়ি উঠে বের হয়ে গেছি … কালকে রাত থেকে মাথা ব্যথা শুরু হয়েছে, সেটাও কিছুতেই কমছে না … কালকে রাতে বাসায় ফিরে একটু খাওয়া করে, গোসল করেই শুয়ে পড়লাম কিন্তু ঘুম ঠিকমতো আসতে আসতে সেই ৪টাই বাজলো … সকালে আবার ৭টায় অ্যালার্ম দিয়ে রেখেছিলাম যে উঠে বিবিসি’র দুইটা কাজ একসাথে শেষ করে পাঠিয়ে দেবো …কিসের কি! বিছানা থেকে মাথাই তুলতে পারলাম না … শেষে সাড়ে ৮টা সময় জোর করে উঠলাম … তারপরও একটার কাজ শেষ হতে হতে সেই সাড়ে দশটাই বাজলো … আরেকটা যখন করতে বসলাম, তখন অর্ধেক করার পরেই মাথা হ্যাং হবার মতো অবস্থা হলো! … একে তো হাতই চলে না, টাইপ করছি একটু একটু করে, তার মধ্যে মাথাও কাজ করা বাদ দিয়ে কিংকর্তব্যবিমূঢ় হবার অবস্থা হলো …

তাও ভালো যে কাজগুলা ঠিকঠাক মতো হয়েছে …

কাজ শেষ করেই আর কোনোদিকে না তাকিয়ে সোজা বিছানায়! … কিন্তু প্রচণ্ড মাথা ব্যথায় আমার ঘুম আসে না … বরং উল্টা-পাল্টা সব স্বপ্ন দেখি … কালকে গ্রুপ থেকে বের হয়ে চা খেতে খেতে গোপী সবাইকে বলছিলো বুড়িগঙ্গায় বেরিয়ে আসার কথা … ও নিজে বোধহয় কালকে গিয়েছিলো, আমাদেরকেও বলছিলো পারলে এই সময়টায় ঘুরে আসতে … ওইটাই বোধহয় মাথার ভেতর গেঁথে গিয়েছিলো … দুপুরে ঘুমের মধ্যে ওইসব নিয়েই স্বপ্ন দেখলাম … তাও কি অদ্ভুত দৃশ্য … একটা বাসার সিঁড়ি দিয়ে দুইতলায় উঠে দরজা খোলার সাথে সাথে পেছনে বুড়িগঙ্গা নদী! অ্যাজ ইফ, কেউ বুড়িগঙ্গার পার ঘেঁষে এরকম একটা এন্ট্রান্স বানিয়ে রেখেছে! … এদিকে ওই দরজা থেকে আবার যেই সাঁকোটা শুরু হয়, সেইটা একটু উঁচু … আমি আবার সেইটাতে উঠতে পারছি না কারণ উঁচু বলে ভয় পাচ্ছি যে একা একা উঠতে গিয়ে না আবার পানিতে পড়ে যাই … এদিকে সাথে নোবেল ভাই আর গোপী ছিলো, কিন্তু তারা অনেকদূর এগিয়ে গেছে … আরেক লোক এসে সাহায্য করতে চাইলো, কিন্তু তার হাত অনেক ঘামে দেখে আমি তার সাহায্য নিলাম না … তারপর আবার ক্যামনে ক্যামনে উপড়ে উঠে গেলাম … রিকশা দিয়ে কোথাও ঘুরছিলাম … এইসব হাবিজাবি দেখতে দেখতে ঘুম ভেঙ্গে গ্যালো …

যাই হোক, আজকে দিনযাপনে আর কিছু লিখবো না … খালি কয়েকটা ছবি দিবো … গতকালকে ল্যাটিচুড লঙ্গিচুডে পাপেট তৈরির ওয়ার্কশপ ছিলো … জলপুতুল পাপেট সেটা কন্ডাক্ট করেছে বলে আমিও ফাঁকতালে পাপেট বানানোর কাজেই ছিলাম … বাচ্চারা বেশ মজা পেয়েছে কালকের সেশনটায় … যদিও প্রচারণাই হয়নি … ফলে, মাত্র দুইদিনের প্রচারণায় হাটে গোনা কয়েকটা বাচ্চা এসেছে …

সে যাই হোক, আমি আবার ফাঁকে ফাঁকে কিছু ছবিও তুলেছিলাম … সেগুলোই আপাতত এখানে পোস্ট করে রাখছি …

অতএব … আর কি? … ঘুমের রাজ্যে পৃথিবী ক্যামন ক্যামন জানি হয়ে যাচ্ছে! … ঘুমাতে যাই, তাইই ভালো …

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s