দিনযাপন । ২৭১১২০১৬

আজকে আমি সত্যি সত্যি পরীক্ষা দিতে যাই নাই। কাল্কেও মনে হয় না যাবো!

পরীক্ষা দিতে যাবো না – এই সিদ্ধান্তটা মনের মধ্যে এই প্রশান্তি এনে দিয়েছে যে অন্তত প্রজাপতি সংক্রান্ত কোনো ভয়াবহ এনকাউন্টার এর সম্মুখীন হতে হচ্ছে না। কিন্তু এই পরীক্ষা না দেয়ার ইম্প্যাক্ট-টা কি হতে পারে, সেই ব্যাপারে আপাতত ভাববার চেষ্টা করছি না। তাইলে মাথা হয়তো আরো গরম হয়ে যাবে। যা হয় হবে টাইপের উইথড্রআল ভাবসাব নিয়ে আছি আপাতত।

তবে সেই সাথে একগাদা হতাশাও জড়ো হয়েছে মাথার ভেতর। নিজের অবস্থা দেখে নিজেই চরম হতাশ। ‘কোনোকিছুর জন্যই আমি আসলে ফিট না’ টাইপ হতাশাবাদ মাথার ভেতর সারাদিন থেকে খোঁচাচ্ছে আর আমি সেটার সাথে আমার যাবতীয় হতাশা, বিষণ্ণতা, দুঃখ-কষ্টের অনুভূতিকে অ্যাসোসিয়েট করে একটু পর পর কান্নাকাটি করেই যাচ্ছি।

সন্ধ্যাবেলা কিঞ্চিৎ পড়ালেখা করার চেষ্টা করেছিলাম অবশ্য। গতকালকে সিন্ধু সভ্যতা পড়ে রেখেছিলাম, আজকে ইসলামি আর্কিটেকচার নিয়ে একটু ঘাঁটাঘাঁটি করলাম। কিন্তু পড়ালেখার মুড কি আর আদৌ আছে? আর মাথার ভেতর তো প্রি-ডিটারমাইন্ড যে পরীক্ষা-টরীক্ষা, ক্লাস এইসব আর মনে হয় না এই শীতকালে সাহস করে করতে যেতে পারবো …

কীভাবে সম্ভব আমার পক্ষে? প্রতিদিন যে স্কুলে যাই দিনের বেলা, সেখানেই তো দেখি একটা না একটা ক্লাস্রুমে এক-দুইটা করে প্রজাপতি বসে আছেই, এমন কি নিচতলার করিডোরে তো প্রতিদিন ২টা কি ৩ টা করে প্রজাপতি থাকবেই। টিচার্স রুমেও এসে মাঝে মাঝে বসে থাকে। স্কুলে একটা বিষয় হয়েছে যে কয়েকদিন আগের ওই কান্নাকাটি সিঙ্ক্রিয়েটের পর এখন ফৌজিয়া আপা, কাশফিয়া আপু এমনকি রুনা বুয়া পর্যন্ত আমার প্রজাপতি ভীতির ব্যাপারে বেশ সিম্প্যাথেটিক। ক্লাস্রুমে প্রজাপতি বসে আছে শুনলে ফৌজিয়া আপা নিজে গিয়ে লাঠি দিয়ে বাড়ি দিয়ে দিয়ে সেই প্রজাপতিকে উড়ায় ক্লাস থেকে বের করে দেয়, কাশফিয়া আপুও তাই। ফলে স্কুলে কিছুটা হলেও আমি একটু রিলিভড থাকি। তারচেয়েও বড় কথা স্কুলে থাকি দিনের বেলা, তখন প্রজাপতি উড়াউড়ির আতঙ্ক নাই। কিন্তু ভার্সিটিতে তো যাই সন্ধ্যায়। আর তখন ক্লাসরুমের মতো অত বিশাল একটা জায়গায় একটা দুইটা প্রজাপতি ঢুকে গেলে কে কোন ঠ্যাকায় সেই প্রজাপতি উড়ায় জানালা-দরজা সব বন্ধ করে দিয়ে বলবে যে ‘প্রজাপতি নাই! এখন মাথা ঠান্ডা?’ …

এইসব যতই ভাবতেসি ততই এত হতাশ লাগতেসে সবকিছু নিয়ে যে কিছুই করতে ইচ্ছা করছে না … কাঁদতে কাঁদতে মাথা ব্যথা হয়ে গেছে আমার … জানি, রাতে যখন ঘুমাতে যাবো, তখন আউটবার্স্ট হবে আবার …

14725529_1778513302388359_7349916240029465175_n

যাই হোক, ডিভানের জন্য কালকে যে ম্যাট্রেসের অর্ডার দেয়া হয়েছিলো সেটা আজকেই দিয়ে গেছে রেডি করে। বুধবারদিন দেবে বলেছিলো, আজকে রেডি করে ফেলেছে ওরা। হাজার সাতেক টাকার কাজ, এইজন্যই গরজ করে তাড়াতাড়ি করে দিয়েছে হয়তো। যত তাড়াতাড়ি কাজ শেষ হয় তত তাড়াতাড়িই তো টাকা পাবে। তা সে যে কারণেই দিয়ে যাক না কেন, আমার জন্য ভালো হয়েছে যে আমাকে আর সোফায় শুতে হবে না। আমি এখন ডিভানেই ঘুমাতে পারবো, আর জানালার পাশের খাটে মা …

আচ্ছা, আজকে আর লিখতে ইচ্ছা করছে না। কালকে যদিও স্কুল একটু দেরি করে, আমি ঘুমিয়ে পড়বো তাড়াতাড়িই… অন্তত কালকে সকালে যদি ৬টা সময়েও উঠি তাও তো একটু বেশি ঘুমাতে পারবো। কালকে স্কুলের টাইমিং ৯টা থেকে, সো সাড়ে ৭টার দিকে বের হলেও সমস্যা হবে না।

অনেকগুলো পেন্ডিং গল্প জমে যাচ্ছে … কীভাবে সিএনজিওয়ালা শুকুর আলি ভাই গুডবুক থেকে বাদ পড়লো … হাকিম ভাই-ও নিজের অসুস্থতার উছিলায় কীভাবে সপ্তাহ দেড়েক যাবৎ আরেক সিএনজি ড্রাইভারকে নিয়মিত পাঠিয়েই যাচ্ছে … এদিকে গত বৃহস্পতিবার স্কুল থেকে বের হয়ে ধানমণ্ডি ২৭ নাম্বারে ফায়ারফ্লাইজ-এ খেয়ে কীভাবে আমি, কাশফিয়া আপু, ফৌজিয়া আপা আর নায়ীমী বাসায় ফিরে মরার মতো ঘুমালাম …

কামতা গাড়ি কিনেছে … চারুর বিয়ের হুলুস্থুল আয়োজন …

জাপান অ্যাম্বেসিতে একটা বোরিং প্রোগ্রামে অ্যাটেন্ড করার জন্য স্কুল-টিস্কুল বাদ দিয়ে কত কাহিনী করে গেলাম … জাস্ট এই জন্য যে কেউ যেন বলতে না পারে যে ডিপার্টমেন্টের প্রোগ্রামে তো প্রজ্ঞা সময়ই দেয় না …  

অনেক অনেক গল্প জমে যাচ্ছে … নিয়মিত দিনযাপন না লেখার কারণে যথাসময়ে যথা গল্প আর লেখা হচ্ছে না …

একদিন ছুটি হবে … সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে মনে হবে আজকে কোনোই কাজ নাই … এরকম দিন যখন আসবে তখন অবশ্যই নিয়মিত দিনযাপন লিখবো … দিনের গল্প দিনেই বলে ফেলবো …

আজকে যাই …

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s